আম গাছ সম্পর্কে ১০টি বাক্য

আম গাছ সম্পর্কে ১০টি বাক্য জেনে আমাদের জ্ঞান ভান্ডারকে প্রসারিত করতে পারেন। আম গাছ চিরসবুজ গাছ। এই গাছটি অনেক বড় হয়। সম্পূর্ণভাবে বেড়ে ওঠা আম গাছটি ছাতার আকৃতির এবং ২০ মিটার উচ্চতা এবং ৩০ মিটার প্রস্থে পৌঁছায়। কাণ্ড মোটা, রুক্ষ এবং ধূসর চামড়া দিয়ে আবৃত। আমের পাতা কচি হলে হালকা সবুজ এবং পাকলে গাঢ় সবুজ। আম গাছের মুকুল ছোট। ফুলগুলো লতার মতো গুচ্ছে ঝুলে থাকে। ফুলের রঙ হলদে-সাদা। চৈত্র বৈশাখ মাসে আমের ফুল ফুটলে চারপাশ ভরে ওঠে মিষ্টি সুবাসে। আম গাছ খুবই শক্ত গাছ। ঘরের স্তম্ভ, নৌকা ও বিভিন্ন আসবাবপত্র তৈরিতে আমগাছের কাঠ ব্যবহৃত হয়।

আম গাছ বাঙালির জীবন ও ঐতিহ্যের অবিচ্ছেদ্য অংশ। প্রাচীন, মধ্যযুগীয় ও আধুনিক সাহিত্যে আম গাছের উল্লেখ আছে। আম গাছ আমাদের দেশের জাতীয় গাছ। আমাদের দেশের অর্থনীতিতে আম গাছ একটি গুরুত্বপূর্ণ স্থান দখল করে আছে। নিচে আম গাছ সম্পর্কে ১০টি বাক্য তুলে ধরা হলো-

আম গাছ সম্পর্কে ১০টি বাক্য

  1. আম গাছগুলি পুষ্পবিশিষ্ট এবং সমৃদ্ধ প্রাকৃতিক সান্নিধ্যে বৃদ্ধি করে।
  2. আম গাছের ফলগুলি সাধারণত একবছরে একবার হয়।
  3. আম গাছটি সাধারিতভাবে শক্ত এবং বড় হয়ে ওঠতে সক্ষম।
  4. আম গাছের ফলগুলি মধুর স্বাদে এবং বিভিন্ন রঙের হয়।
  5. আম গাছের শাখাগুলি সুন্দরভাবে ছায়া তৈরি করে এবং পুষ্পবিশিষ্ট হলে গাছটি আরও আকর্ষণীয় দেখায়।
  6. আম গাছ রাতের ঠান্ডা ও দুপুরের গরম সহ্য করে টিকে থাকতে পারে।
  7. আম গাছ চারা দ্বারা সহজেই প্রসারিত হতে সক্ষম।
  8. আম গাছট পূর্ণবয়স্ক হলে একটি বড় আকারের এবং মজবুত গাছ হয়।
  9. আম গাছ আমাদের ফলের পাশাপাশি জ্বালানির অভাব দূর করে।
  10. আম গাছ বাংলাদেশের আবহাওয়ার সাথে সামঞ্জস্য।

উপসংহার

উপরোক্ত আলোচনা থেকে আম গাছ সম্পর্কে ১০টি বাক্য জানলাম। আম গাছের বৈচিত্র্যময় ব্যবহার এটিকে বাংলাদেশের একটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ গাছে পরিণত করেছে। বর্তমানে অভ্যন্তরীণ চাহিদা মিটিয়ে বাংলাদেশ বিদেশে আম রপ্তানি করে। আমগাছ অন্যান্য গাছের মত বাংলাদেশী সংস্কৃতির সাথে প্রত্যক্ষভাবে যুক্ত। বাংলাদেশের জাতীয় গাছের মর্যাদা পেয়েছে আম গাছ।

Leave a Comment